২৩শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৭ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |
শিরোনাম
সিঙ্গাইরে সম্প্রীতি সমাবেশ ও শান্তি শোভাযাত্রা সিঙ্গাইরে ইউপি নির্বাচনে আ.লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মিঠু গ্রেফতার সিঙ্গাইরে ১১ ইউপিতে ৪৬ চেয়ারম্যান প্রার্থীর মনোনয়নপত্র দাখিল পাবজি খেলা নিয়ে দ্বন্দ্ব, সিঙ্গাইরে বন্ধুর হাতে প্রাণ গেল কিশোরের স্বতন্ত্র প্রার্থীর মনোনয়নপত্র ছিনতাইয়ের অভিযোগে আ.লীগ প্রার্থীর ছেলে আটক সিঙ্গাইরে শিশু বলাৎকার মামলার প্রধান আসামী মাদ্রাসা শিক্ষক গ্রেফতার লেবাননে ফের ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প, প্রবাসীদের উপচেপড়া ভির লেবানন আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত সিঙ্গাইরে দেয়ালে অঙ্কিত বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর ছবি বিকৃতি কালের কণ্ঠ সম্পাদক ইমদাদুল হক মিলনের আজ শুভ জন্মদিন

কোভিড-১৯: চিকিৎসা হবে ইজতেমা মাঠে, তত্ত্বাবধানে সেনাবাহিনী

দেশে করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত রোগীদের রাজধানীর কুয়েত-মৈত্রী হাসপাতালসহ আরও কয়েকটি হাসপাতালের বাইরে টঙ্গীর ইজতেমা ময়দানে রেখেও চিকিৎসা দেওয়া হবে। আর সেখানকার সার্বিক ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে থাকবে সেনাবাহিনী।

বৃহস্পতিবার (১৯ মার্চ) স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের জরুরি এক ব্রিফিংয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক এ তথ্য জানান সাংবাদিকদের।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, বর্তমানে ইজতেমা মাঠে দুই হাজার মানুষকে চিকিৎসা দেওয়া মতো ব্যবস্থা রয়েছে। প্রয়োজনে ইজতেমা মাঠেই আরও বড় পরিসরে কোভিড-১৯ রোগীদের চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হবে। আমরা এর জন্য প্রস্তুত রয়েছি।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরও বলেন, এরই মধ্যে কোভিড-১৯ রোগীদের চিকিৎসার জন্য কুয়েত-মৈত্রী হাসপাতাল ব্যবহার করা হচ্ছে। আরও কয়েকটি হাসপাতাল চিহ্নিত করা হয়েছে। এসব হাসপাতাল মিলিয়ে প্রায় দুই হাজার বেডের ব্যবস্থা করা যাবে। তারপরও যদি আরও বড় জায়গা প্রয়োজন হয়, সে জন্যই আমরা ইজতেমা মাঠটি প্রস্তুত করতে কাজ করছি।

তিনি বলেন, বিশ্ব ইজতেমার জায়গাটি বেশ বড়। জায়গাটি সেনাবাহিনীর কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। তারা জায়গাটিকে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসার জন্য প্রস্তুত করছে।

আরও পড়ুন- স্বাস্থ্য বিভাগের সবার ছুটি বাতিল

জাহিদ মালেক আরও বলেন, আমরা করোনাভাইরাস মোকাবিলায় দুই মাস ধরে চেষ্টা করছি। এজন্য অন্যান্য দেশের তুলনায় আমাদের দেশ অনেক ভালো আছে।

জাহিদ মালেক আরও বলেন, বাংলাদেশ বিশের অন্যান্য আক্রান্ত দেশের তুলনায় তুলনামূলকভাবে ভালো আছে। আমাদের আক্রান্তের হার কম, মৃত্যুও হয়েছে একজনের। যে ব্যক্তি মারা গেছেন, তিনি বয়স্ক ছিলেন। একইসঙ্গে তিনি অন্যান্য রোগেও ভুগছিলেন।

বিদেশ থেকে যারা আসছেন, তাদের উদ্দেশে জাহিদ মালেক বলেন, বিদেশ থেকে এসে সঙ্গনিরোধ (কোয়ারেনটাইন) না করে অনেকে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। অনেকে মিথ্যা কথা বলছেন। স্বীকার করছেন না যে তারা বিদেশ থেকে এসেছেন। এর মাধ্যমে তারা নিজেদের তো বটেই, অন্যদেরও ক্ষতি করছেন। বিদেশে যারা আছেন, তারা দয়া করে আসবেন না। আপনার আপনজনদের ক্ষতি করবেন না।

আরও পড়ুন