২১শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ৭ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |
শিরোনাম
মালয়েশিয়ায় স্বাধীনতার সুবর্ন জয়ন্তী ও বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ৭৪ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা। সিঙ্গাইর টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ শতভাগ পাশ স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে মালয়েশিয়া আওয়ামী লীগ বুকিত বিনতাং শাখার আলোচনা সভা তিন বছর পর বাংলাদেশ থেকে কর্মী নেবার সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করায় দোয়া মাহফিল সিঙ্গাইরের জয়মন্টপে শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ অটোরিক্সার ইঞ্জিনে চাদর পেঁচিয়ে সিঙ্গাইরে ব্যবসায়ীর মৃত্যু সিঙ্গাইরে চোখ উপড়ানো ডাকাতের লাশ উদ্ধার সিঙ্গাইর সদরে ফ্রি রক্তের গ্রুপ নির্ণয় কার্যক্রম অনুষ্ঠিত বিজয় দিবস উপলক্ষে সিঙ্গাইরে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প বিজয় দিবসে বীর শহীদদের স্বরণ করল সিঙ্গাইর থানা পুলিশ।
  • প্রচ্ছদ
  • বাবুগঞ্জে উচ্চফলনশীল বিনা তিল ২ এর মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত
  • বাবুগঞ্জে উচ্চফলনশীল বিনা তিল ২ এর মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত

    আব্দুল্লাহ মামুন: বাংলাদেশ কৃষি পরমানু গবেষণা ইন্সটিটিউট’র উদ্ভাবিত স্বল্প জীবনকালীন ও উচ্চফলনশীল তিলের জাত বিনা তিল-২ এর প্রচার এবং সম্প্রসারণের লক্ষ্যে কৃষক মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়েছে । বাবুগঞ্জ উপজেলার চাঁদপাশা ইউনিয়নের ভবানিপুর গ্রামে বৃহস্পতিবার দুপুরে এই মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়।

    এসময় এলাকার শতাধিক কৃষক উপস্থিত ছিলেন। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর বাবুগঞ্জ এর সহযোগিতা এবং বাংলাদেশ কৃষি পরমানু গবেষণা ইন্সটিটিউট’র বরিশাল উপ- কেন্দ্রের আয়োজনে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোসাম্মৎ মরিয়স এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মাঠদিবসে প্রধান অতিথি ছিলেন ডাঃ মু: সামসুল আলম সিএসও আঞ্চলিক কৃষি গবেষনা কেন্দ্র রহমতপুর,বরিশাল।

    বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ড.মোঃ বাবুল আকতার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বিনা উপকেন্দ রহমতপুর,বরিশাল,মোঃ শাহাদাত হোসেন আঞ্চলিক কৃষি তথ্য অফিসার বরিশাল অঞ্চল বরিশাল, উপস্থিত ছিলেন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা মোঃ সোহেল রানা,সহঃ বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তাকাজী এনায়েত হোসেন বৈজ্ঞানিক সহকারী নির্মল কুমার দে, উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা খোরশেদ আলম, বক্তব্য রাখেন তিল চাষি আঃ জলিল , আমিনুল ইসলাম প্রমুখ।

    অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি   ড. মুহাম্মদ সামসুল আলম বলেন, ঐতিহ্য ফিরে পেতে দরকার তিলের আবাদ বাড়ানো।এক সময় ভোজ্যতেলের তালিকায় সরিষার পরেই ছিল তিলের স্থান। আজকাল এর ব্যবহার যথেচ্ছ পরিমাণ কমে গেছে। অথচ তিল স্বল্পকালিন ফসল। উৎপাদন খরচ কম। শস্য সহজেই সংগ্রহযোগ্য। লাভও হয় বেশ। তবে জলাবদ্ধতা সহ্য করতে পারে না। এজন্য প্রয়োজন উঁচু জমি নির্বাচন।

    আরও পড়ুন