২৬শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ১০ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |
  • প্রচ্ছদ
  • ভোলার চরফ্যাশনে টুনু চৌধুরী মেমোরিয়াল ডায়াগনস্টিক সেন্টার উদ্বোধন




  • সোয়েব চৌধুরী,বিশেষ প্রতিনিধি

    ভোলার চরফ্যাশনে টুনু চৌধুরী মেমোরিয়াল ডায়াগনস্টিক সেন্টার উদ্বোধন

    ভোলার চরফ্যাশনে ১৯৮৪ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় সাগরী সিনেমা হল। ঐতিহ্যবাহী এ সিনেমাহলটি প্রায় ৪দশক ধরে দর্শক মাতানো সিনেমা প্রদর্শণ করে সুনামের সাথে। দির্ঘ ২বছর যাবত মানহীন সিনেমা, অনুন্নত পরিবেশ, হল আধুনিকায়ন না হওয়া, হাতের মুঠোয় ইউটিউব, নেটফ্লিক্স, আইফ্লিক্সে সিনেমা দেখার সুযোগের কারণে সিনেমা হল থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছেন দর্শকরা। তাই সিনেমাহলটি কর্তৃপক্ষ বন্ধ করে দিয়ে চিকিৎসা সেবার জন্য নতুন করে দৃষ্টিনন্দন ও অত্যাধুনিকমানের একটি ডায়াগনস্টিক সেন্টারে রূপান্তরিত করা হয়। নাম দেওয়া হয় টুনু চৌধুরী মেমোরিয়াল ডায়াগনস্টিক সেন্টার।

    এ ডায়াগনস্টিক সেন্টারটি (রোববার ১০নভেম্বর) বিকেলে শুভ উদ্বোধন করেন যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত স্থায়ী কমিটির সভাপতি চরফ্যাশন ও মনপুরার সংসদ সদস্য আব্দুল্লাহ আল ইসলাম জ্যাকব। এসময় উপস্থিত ছিলেন,মরহুম টুনু চৌধুরীর সহধর্মিণী, ভোলা জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও জাতীয় মহিলা পরিষদ, ভোলা জেলার সাংগঠনিক সম্পাদক সালেহা আক্তার চৌধুরী বুলবুল, চরফ্যাশন উপজেলা চেয়ারম্যান জয়নাল আবেদিন আখন, উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলাম ভিপি,পৌর মেয়র শ্রী বাদল কৃষ্ণ দেবনাথ ও উপজেলা প্রেসক্লাব সাধারণ সম্পাদক মনির আহমেদ শুভ্র প্রমুখ। এসময় আব্দুল্লাহ আল ইসলাম জ্যাকব স্মৃতিচারণ করে বলেন, ১৯৮৪ সালে সাগরী সিনেমা হলটি প্রতিষ্ঠিত হয়। কালের পরিক্রমায় তা আজ বিলুপ্ত হয়ে গেছে। সিনেমাহলের রূপালী আলো নিভে গেলেও তা আজ প্রতিষ্ঠিত হয়েছে মানবসেবার উজ্জ্বলিত আলোয়।

    ভোলার বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও রাজাপুর ইউনিয়নের দীর্ঘ ২৮ বছরের চেয়ারম্যান মরহুম টুনু চৌধুরীর ছেলে ও টুনু চৌধুরী মেমোরিয়াল ডায়াগনস্টিক সেন্টারের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডাক্তার গোলাম রাব্বি চৌধুরী সাক্ষর বলেন, আমার মরহুম পিতা তার জীবদ্দশায় এখানে একটি আধুনিক চিকিৎসা সেবা প্রতিষ্ঠান স্থাপনের জন্য তিনি ওসিয়ত করে যান। যার ধারাবাহিকতায় ভোলা জেলার সর্বোচ্চ ও প্রারম্ভিক বিনিয়োগের মাধ্যমে এ প্রতিষ্ঠানটি আমরা প্রতিষ্ঠিত করেছি। আমাদের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে চরফ্যাশন ও মনপুরার দুর্গম চরাঞ্চলের জনগোষ্ঠীর চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করা। আমাদের এখানে ইউরোপিয়ান মেশিনারিজ সমৃদ্ধ অত্যাধুনিক ল্যাবরেটরি,সম্পূর্ণ কম্পিউটারাইজড ডায়গনস্টিক টুলস, বিখ্যাত ফুজি ব্রান্ডের ৫০০ এমএ এক্সরে মেশিন এবং সিআর প্রিন্টার,আমেরিকার স্বনামধন্য ফিলিপস কোম্পানির ফোর ডি আল্ট্রাসনোগ্রাম এবং ইকোকার্ডিওগ্রাম মেশিন, ১২ চ্যানেলের ইসিজি মেশিন দ্বারা বিভিন্ন পরিক্ষা নিরিক্ষার কাজ করা হবে।

    ডাক্তার গোলাম রাব্বি চৌধুরী সাক্ষর আরোও বলেন, লালমোহন, চরফ্যাশন ও মনপুরা উপজেলার কয়েক লক্ষ ডায়াবেটিস রোগীর কষ্ট লাঘবে এখানে স্থাপিত হতে যাচ্ছে বারডেম অনুমোদিত “চরফ্যাশন ডায়াবেটিস সেন্টার” এখান থেকে ডায়াবেটিস রোগীরা বারডেমের বই পাবেন। সেই সাথে বারডেমের অনুসৃত ডায়বেটিস চিকিৎসা সেবার সুফল পাবেন এই দক্ষিণ জনপদের অবহেলিত জনগন।

    Print Friendly, PDF & Email

    আরও পড়ুন